ইউপি নির্বাচনঃ দুপুর ২টার আগে এবং রাত ৮টার পরে মাইক বাজানো নিষেধ

85

ডেস্ক রিপোর্টঃ

আগামী ১১ এপ্রিল প্রথম ধাপে ৩৭১টি ইউনিয়ন পরিষদে (ইউপি) ভোটগ্রহণের মাধ্যমে শুরু হতে যাচ্ছে ইউনিয়ন পরিষদ সাধারণ নির্বাচন-২০২১। ইউপি নির্বাচন উপলক্ষে কিছু বিধিবিধান পরিপত্র আকারে জারি করেছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।
রোববার (১৪ মার্চ) জারি করা পরিপত্র-৪ অনুযায়ী, নির্বাচনী প্রচারের সময় দুপুর ২টার আগে এবং রাত ৮টার পর মাইক বা উচ্চ শব্দ হয় এমন কোনো যন্ত্র বাজানো নিষেধ। পরিপত্রে বলা হয়েছে, নির্বাচনপূর্ব সময়ে অর্থাৎ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর থেকে ভোটগ্রহণের দিন পর্যন্ত প্রত্যেক প্রার্থীকে ইউনিয়ন পরিষদ (নির্বাচন আচরণ) বিধিমালা, ২০১৬-এর বিধিবিধানগুলো মেনে চলতে হবে। এই বিধিমালার বিধি-৫ অনুসারে কোনো প্রার্থী বা তার পক্ষে কোনো রাজনৈতিক দল, অন্য কোনো ব্যক্তি, সংস্থা বা প্রতিষ্ঠান রিটার্নিং কর্মকর্তার দেয়া প্রতীক বরাদ্দের আগে কোনো ধরনের নির্বাচনী প্রচার শুরু করতে পারবেন না।

👉কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী বা তার পক্ষে কোনো রাজনৈতিক দল বা কোনো ব্যক্তি, সংস্থা বা প্রতিষ্ঠান পথসভা বা নির্বাচনী প্রচার কাজে একটি ওয়ার্ডে একের অধিক মাইক্রোফোন বা শব্দের মাত্রা বৃদ্ধি করে এমন কোনো যন্ত্র ব্যবহার করতে পারবেন না। কোনো নির্বাচনী এলাকায় মাইক বা শব্দের মাত্রা বৃদ্ধি করে এমন অন্য কোনো যন্ত্রের ব্যবহার দুপুর ২টার আগে এবং রাত ৮টার পরে করা যাবে না।

👉যানবাহন সংক্রান্ত বিধিনিষেধে বলা হয়েছে, কোনো প্রার্থী বা তার পক্ষে কোনো রাজনৈতিক দল, অন্য কোনো ব্যক্তি, সংস্থা বা প্রতিষ্ঠান কোনো ট্রাক, বাস, মোটরসাইকেল, নৌযান, ট্রেন কিংবা অন্য কোনো যান্ত্রিক যানবাহন সহকারে মিছিল বা মশাল মিছিল বা অন্য কোনো ধরনের মিছিল বের করতে পারবেন না কিংবা কোনো ধরনের শোডাউন করতে পারবেন না। নির্বাচনী কাজে হেলিকপ্টার বা অন্য কোনো আকাশযান ব্যবহার করা যাবে না। তবে দলীয় প্রধানের যাতায়াতের জন্য এগুলো ব্যবহার করা যাবে। কিন্তু যাতায়াতের সময় হেলিকপ্টার থেকে লিফলেট, ব্যানার বা অন্য কোনো প্রচার-সামগ্রী প্রদর্শন বা বিতরণ করতে পারবেন না।

👉ভোটকেন্দ্রের নির্ধারিত চৌহদ্দির মধ্যে মোটরসাইকেল বা অন্য কোনো যান্ত্রিক যানবাহন চালানো যাবে না বলেও পরিপত্রে উল্লেখ করা হয়েছে। এছাড়াও আরও কিছু বিধিনিষেধ পরিপত্র আকারে জারি করেছে নির্বাচন কমিশন।

উল্লেখ্য, প্রথম ধাপে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন ১৮ মার্চ। মনোনয়নপত্র বাছাই ১৯ মার্চ, প্রার্থিতা প্রত্যাহার ২৪ মার্চ এবং ভোটগ্রহণ হবে ১১ এপ্রিল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here