অভিনেতা তৌসিফের বিরুদ্ধে থানায় তরুণীর অভিযোগ

41

ছোটপর্দার অভিনেতা তৌসিফ মাহবুবের বিরুদ্ধে রাজধানীর হাতিরঝিল থানায় অভিযোগ করেছেন শামসুন্নাহর কনা নামে এক তরুণী। শনিবার (১৬ জানুয়ারি) সকালে থানায় হাজির হয়ে তৌসিফের বিরুদ্ধে সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন তিনি। যার নম্বর ৭৫৫।

তার অভিযোগ- ‘নাটকের অভিনেত্রী বানাবেন’ এমন প্রস্তাব দিয়ে বিভিন্ন সময় ৫ লাখ টাকা নিয়েছেন তৌসিফ।
জিডিতে কনা উল্লেখ করেন, ফেসবুকের মাধ্যমে তৌসিফের সঙ্গে ১৮ মাস আগে পরিচয় হয় তার। গত ছয় মাস আগে ০১৬**৯৭৮৯০৯ এই নাম্বারে কনার কাছ থেকে বিশ হাজার টাকা নেন তৌসিফ। এরপর তৃতীয় পক্ষ শাহরিয়া হোসেনের মাধ্যমে সোনালী ব্যাংক, সাহাপুর শাখা, চাটখিল, নোয়াখালী অ্যাকাউন্ট নং ৩৪১০০৪৪১ হিসাবের মাধ্যমে বিভিন্ন সময়ে আরও তিন লাখ বিশ হাজার টাকা নেন। টাকা নেওয়ার পর তৌসিফ তরুণীর সঙ্গে আর কোনো যোগাযোগ করেননি। তার ব্যবহৃত সব নম্বর বন্ধ করে দেন।

বিষয়টি নিয়ে জানতে চাইলে কনা সময় নিউজকে বলেন, বিভিন্ন সময় তৌসিফ আমার কাছে টাকা দাবি করেছে। আমি আমার ইচ্ছা পূরণ করার জন্য তাকে টাকাও দিয়েছি। তার সঙ্গে আমার দুই বছর আগে থেকে ফেসবুকে পরিচয়। রিয়েল আইডি দিয়েই তার সঙ্গে কথা হয়েছে আমার। ভিডিও কলে কথা বলেছি আমরা। প্রথম দিকে রিয়েল আইডি দিয়ে কথা হলেও পরে তৌসিফ ফেইক আইডি দিয়ে আমার সঙ্গে কথা বলত। রিয়েল আইডি দিয়ে কথা বললে তার সমস্যা হবে, তাই ফেইক আইডি দিয়ে কথা বলত। তারপর আমাকে সব জায়গায় ব্লক করে দিয়েছে তৌসিফ।
জিডির বিষয়টি জানেন উল্লেখ করে অভিনেতা তৌসিফ সময় নিউজকে বলেন, মডেল বানানোর নামে আমি ৫ লাখ টাকা নিয়েছি, এটাও শুনতে হলো আমাকে। আমার আইডি ভেরিফায়েড করা। কেউ যদি ভুল জায়গায় গিয়ে প্রতারণার শিকার হয় সেটার দায়ভার আমার না। আমি বান্দরবনে শুটিংয়ে ছিলাম। সেখান থেকে ফিরেছি। সাইবার ক্রাইমে কথা বলব বিষয়টি নিয়ে।
এদিকে, সাধারণ ডায়েরি বিষয়ে ব্যবস্থা নিচ্ছেন হাতিরঝিল থানার উপ-পরিদর্শক আতাউল মাহমুদ।
সময় নিউজকে তিনি বলেন, জিডির বিষয়ে অবগত হয়েছি। বিষয়টি খতিয়ে দেখে তারপর বিস্তারিত জানাতে পারব। ধারণা করছি, ফেসবুকে প্রতারণার মাধ্যমে ওই তরুণীর কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নেওয়া হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here